Amardesh Online......................
আজ বৃহস্পতিবার, ১০ মাঘ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ, ২৩ জানুয়ারী ২০২০ খ্রিস্টাব্দ
চিরস্থায়ী বাংলা ক্যালেন্ডার
ধেয়ে আসছে সুপারবাগ মহামারি
92nd Prizebond Draw, 31 Jul 2018

Pregnancy Care
Check your IP
Public Universities
Private Universities
Intl. Universities in BD
350 MP List
Local E-Commerce Sites
Banks in Bangladesh
Bangladesh Post Codes
Airlines in Bangladesh
Shahjalal Airport Arrival
Shahjalal Airport Departure
Osmani Airport Arrival
Osmani Airport Departure

২৩ জানুয়ারী: ইতিহাসের এই দিনে-

ঘটনাবলী

  • ১৫৫৬ সালে চীনের সানসি প্রদেশে বিশ্বের ভয়াবহ ভূমিকম্প হয়েছিলো।
  • ১৫৭০  সালে স্কটল্যান্ডের অন্তবর্তীকালীন শাসন আর্ল অব মোর খুন হন।
  • ১৯১৩   সালে তুরস্কে অভ্যুত্থানে নাজিম পাশা নিহত হন ও শেবকেত পাশা নতুন মন্ত্রিসভা গঠন করেন।
  • ১৯১৯ সালে মুসোলিনি ইতালির ফ্যাসিস্ত পার্টি প্রতিষ্ঠা করেছিলেন।
  • ১৯২০ সালে ভারতীয় উপমহাদেশের বিমানে মাল পরিবহন ও ডাক যোগাযোগ শুরু হয়।
  • ১৯২২ সালে কানাডার টরেন্টো জেনারেল হাসপাতালে প্রথম ডায়াবেটিস বা বহুমুত্রে আক্রান্ত এক রোগীকে কৃত্রিম ইনস্যুলিন দেয়া হয়।
  • ১৯৪৩ সালে ব্রিটিশ বাহিনী ত্রিপোলি অধিকার করে নেয়।
  • ১৯৫০ সালে ইহুদিবাদী ইসরাইলের সংসদ নেসেট মুসলমানদের প্রথম কেবলা বায়তুল মোকাদ্দেসকে নিজেদের রাজধানী হিসেবে ঘোষণা করেছিলো।
  • ১৯৬৪  সালে ইন্দোনেশিয়া-মালয়েশিয়া যুদ্ধ বিরতিতে সম্মতি প্রকাশ করে।
  • ১৯৬৭ সালে সাবেক সোভিয়েত ইউনিয়ন ও আইভরি কোস্টের মধ্যেকার কূটনৈতিক সম্পর্ক স্থাপিত হয়।
  • ১৯৬৮ সালে নিজ জলসীমায় গোয়েন্দাগিরির অভিযোগে উত্তর কোরিয়া কর্তৃক ইউএসএস পিউব্লো (এজিইআর-২) জাহাজ আটক হয়।
  • ১৯৭৯ সালে ইরানের শাহ সরকারের শেষ প্রধানমন্ত্রী শাপুর বখতিয়ার ইরানের বিমান বন্দরগুলো বন্ধ করে দেয়ার নির্দেশ প্রদান করেন।
  • ১৯৮৯ সালে সোভিয়েত তাজাখস্তানে ভূমিকম্পে চৌদ্দ শতাধিক লোকের প্রাণহানি ঘটে।
  • ১৯৯২  সালে এল সালভেদরের পার্লামেন্টে গৃহযুদ্ধে জড়িত গেরিলাদের সাধারণ ক্ষমা করে বিল পাস করে।
  • ১৯৯৬  সালে ইসরাইলের প্রধানমন্ত্রী আইজাক রাবনকে হত্যার পর আদালতে ইগল আমির স্বীকাররোক্তি দেন।
  • ১৯৯৭ সালে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ১ম নারী হিসেবে মেডেলিন অলব্রাইট সেক্রেটারী অব স্ট্যাট নিযুক্ত হন।
  • ২০০১ সালে বাংলাদেশে চতুর্থ আদমশুমারি শুরু হয়।
  • ২০০২ সালে পাকিস্তানের করাচীতে সাংবাদিক ড্যানিয়েল পার্ল অপহৃত হন এবং পরবর্তীতে নিহত হন।

জন্ম

  • ১৭১৯ সালে জন্ম গ্রহণ করেছিলেন জন লান্ডেন, তিনি ছিলেন ইংরেজ গণিতবিদ ও তাত্ত্বিক।
  • ১৭৫২ সালে জন্ম গ্রহণ করেছিলেন মুযিও ক্লেমেন্টি, তিনি ছিলেন ইতালিয়ান পিয়ানোবাদক, সুরকার ও পথপ্রদর্শক।
  • ১৭৮৩ সালে ফরাসী ওপন্যাসিক স্তাঁদাল জন্ম গ্রহণ করেন।
  • ১৮২৩ সালে জন্ম গ্রহণ করেছিলেন প্যারীচরণ সরকার, তিনি ছিলেন শিক্ষাবিদ, সমাজসংস্কারক ও উনিশ শতকের বাঙলার পাঠ্যপুস্তক রচয়িতা।
  • ১৮৬২ সালে জন্ম গ্রহণ করেছিলেন ডেভিড হিলবার্ট, তিনি ছিলেন জার্মান গণিতবিদ।
  • ১৮৭৬ সালে জন্ম গ্রহণ করেছিলেন অটো ডিলস, তিনি ছিলেন নোবেল পুরস্কার বিজয়ী জার্মান রসায়নবিদ।
  • ১৮৯১ সালে ইতালীয় মার্কসবাদী তাত্ত্বিক আন্তোনিও গ্রামসি জন্মগ্রহণ করেন।
  • ১৮৯৭ সালে জন্ম গ্রহণ করেছিলেন নেতাজি সুভাষচন্দ্র বসু, তিনি ছিলেন ভারতের স্বাধীনতা আন্দোলনের অন্যতম নেতা ও আজাদ হিন্দ ফৌজের সর্বাধিনায়ক।
  • ১৮৯৮ সালে জন্ম গ্রহণ করেছিলেন সের্গে আইজেনস্টাইন, তিনি ছিলেন সোভিয়েত চলচ্চিত্র পরিচালক ও চলচ্চিত্র তাত্ত্বিক।
  • ১৯০৭ সালে জন্ম গ্রহণ করেছিলেন হিদেকি ইউকাওয়া, তিনি ছিলেন নোবেল পুরস্কার বিজয়ী জাপানি পদার্থবিজ্ঞানী।
  • ১৯১৫ সালে জন্ম গ্রহণ করেছিলেন উইলিয়াম আর্থার লিউইস, তিনি ছিলেন নোবেল পুরস্কার বিজয়ী অর্থনীতিবিদ।
  • ১৯১৮ সালে জন্ম গ্রহণ করেছিলেন গারট্রুড বি. এলিওন, তিনি ছিলেন নোবেল পুরস্কার বিজয়ী আমেরিকান প্রাণরসায়নী ও ফার্মাকোলজিস্ট।
  • ১৯২৯ সালে জন্ম গ্রহণ করেছিলেন জন চার্লস পোলানি, তিনি নোবেল পুরস্কার বিজয়ী হাঙ্গেরিয়ান বংশোদ্ভূত কানাডিয়ান রসায়নবিজ্ঞানী।
  • ১৯৩০ সালে জন্ম গ্রহণ করেছিলেন ডেরেক এলটন ওয়ালকট, নোবেল পুরস্কার বিজয়ী বিখ্যাত কবি ও বিশিষ্ট নাট্যকার।
  • ১৯৪২ সালে জন্ম গ্রহণ করেছিলেন রাজ্জাক, তিনি বাংলাদেশের প্রখ্যাত চলচ্চিত্র অভিনেতা ও পরিচালক।
  • ১৯৪৭ সালে জন্ম গ্রহণ করেছিলেন মেঘবতী সুকর্ণপুত্রী, তিনি ইন্দোনেশিয়ার ৫ম প্রেসিডেন্ট।
  • ১৯৫২ সালে জন্ম গ্রহণ করেছিলেন ওমর হেনরী, তিনি ছিলেন দক্ষিণ আফ্রিকান ক্রিকেটার।
  • ১৯৫০ সালে জন্ম গ্রহণ করেছিলেন রিচার্ড ডিন অ্যান্ডারসন, তিনি আমেরিকান অভিনেতা, প্রযোজক ও সুরকার।
  • ১৯৬৪ সালে জন্ম গ্রহণ করেছিলেন ভারাট জাগডেও, তিনি গায়ানার অর্থনীতিবিদ, রাজনীতিবিদ ও ৭ম প্রেসিডেন্ট।
  • ১৯৭১ সালে জন্ম গ্রহণ করেছিলেন এডাম প্যারোরে, তিনি ছিলেন নিউজিল্যাণ্ডের উইকেটরক্ষক (ক্রিকেট)।
  • ১৯৭৭ সালে জন্ম গ্রহণ করেছিলেন কমল হীর, তিনি পাঞ্জাবী গায়ক ও সংগীতশিল্পী।
  • ১৯৮৪ সালে জন্ম গ্রহণ করেছিলেন আর্ইয়েন রবেন, তিনি ওলন্দাজ ফুটবল খেলোয়াড়।

মৃত্যু

  • ১০০২ সালে মৃত্যুবরণ করেন তৃতীয় অটো, তিনি ছিলেন রোমান সম্রাট।
  • ১৮০৬ সালে মৃত্যুবরণ করেন ওয়িলিয়াম পিট, তিনি ছিলেন ইংরেজ রাজনীতিবিদ ও প্রধানমন্ত্রী।
  • ১৮৫৯ সালে কবি ঈশ্বরচন্দ্র গুপ্ত পরলোকগমন করেন।
  • ১৯০৯ সালে মৃত্যুবরণ করেন নবীনচন্দ্র সেন, তিনি ছিলেন বাংলা সাহিত্যের একজন কবি।
  • ১৯৪৪ সালে মৃত্যুবরণ করেন ভিক্টর গুসেভ, তিনি ছিলেন রাশিয়ান কবি।
  • ১৯৫৬ সালে মৃত্যুবরণ করেন আলেকজান্ডার কোর্ডা, হাঙ্গেরিয়ান বংশোদ্ভূত ইংরেজ পরিচালক ও প্রযোজক।
  • ১৯৭৬ সালে আমেরিকার কৃষ্ণাঙ্গ সংগ্রামী শিল্পী ও গায়ক পল রোবসন মৃত্যুবরণ করেন।
  • ১৯৮৩ সালে মৃত্যুবরণ করেন ফ্লপি ডিস্ক, তিনি ছিলেন ইংরেজ ক্রিকেটার।
  • ১৯৮৯ সালে মৃত্যুবরণ করেন সালভাদর দালি, তিনি ছিলেন স্পেনীয় চিত্রকর।
  • ২০০৩ সালে মৃত্যুবরণ করেন নিল কার্টার, তিনি ছিলেন আমেরিকান অভিনেত্রী ও গায়ক।
  • ২০১২ সালে মৃত্যুবরণ করেন অমল বোস, তিনি ছিলেন বাংলাদেশের চলচ্চিত্র জগতের একজন অভিনেতা।
  • ২০১৫ সালে মৃত্যুবরণ করেন আবদুল্লাহ বিন আবদুল আজিজ, তিনি ছিলেন সৌদি আরবের বাদশাহ ও খাদেমুল হারামাইন শরিফাইন।

২৩ জানুয়ারী: মুক্তিযুদ্ধের এই দিনে-

  • পিপলস পার্টির হাই কমান্ড ১৮ সদস্যবিশিষ্ট কেন্দ্রীয় কমিটি আজ সকালে জেড. এ ভুট্টোর ক্লিফটনস্থ বাসভবনে তাঁর সভাপতিত্বে বৈঠকে মিলিত হয়। বৈঠকে সিদ্ধান্ত হয়, ভুট্টো বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সঙ্গে সাক্ষাতের জন্য ২৭ জানুয়ারি ঢাকায় ১৫ সদস্যবিশিষ্ট একটি প্রতিনিধিদলের নেতৃত্ব দেবেন। বৈঠকের প্রথম অধিবেশনের পর পিপলস পার্টির করাচি অঞ্চলের চেয়ারম্যান এবং কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য আবদুল হাফিজ পীরজাদা সাংবাদিকদের ওই তথ্য প্রদান করে বলেন, তাদের দলীয় প্রতিনিধিদল পাঁচ দিন ঢাকায় অবস্থান করবে।
  • পূর্ব পাকিস্তান ছাত্র ইউনিয়ন আহূত ১১ দফা সপ্তাহের আজ শেষ দিন। এ উপলক্ষে ঢাকায় ছাত্র ইউনিয়নের উদ্যোগে 'মশাল মিছিল' বের করা হয়। 'মশাল মিছিল' কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার থেকে বের হয়ে বিভিন্ন রাজপথ প্রদক্ষিণ করে। মিছিল '১১ দফার সংগ্রাম চলবেই', 'শোষক গোষ্ঠীকে খতম করো', 'বিপ্লবী সংগ্রাম গড়ে তোল', 'জেলের তালা ভাঙব রাজবন্দিদের আনব', 'জননেতা মণি সিংয়ের মুক্তি চাই', 'কমিউনিস্ট পার্টিকে বেআইনি রাখা চলবে না', 'চাল ডাল তেলের দাম কমাতে হবে', 'অন্ন বস্ত্র শিক্ষা চাই, নইলে এবার রক্ষা নাই' ইত্যাদি স্লোগান দেয়। সব শেষে মিছিলটি বাহাদুর শাহ পার্কে এসে সংক্ষিপ্ত সভায় মিলিত হয়। সেখানে পূর্ব পাকিস্তান ছাত্র ইউনিয়নের সভাপতি নুরুল ইসলামের ভাষণের মধ্য দিয়ে ১১ দফা সপ্তাহের কর্মসূচির সমাপ্তি ঘোষণা করা হয়।
  • ১১ দফা সপ্তাহের শেষ দিনে পূর্ব পাকিস্তান ছাত্রলীগের উদ্যোগেও ঢাকার বায়তুল মোকাররম থেকে 'মশাল মিছিল' বের করা হয়। মিছিল শহরের বিভিন্ন রাস্তা প্রদক্ষিণ করে।